Ad Code

Ticker

6/recent/ticker-posts

ads1

পায়ে চুলকানি? ঘামের দুর্গন্ধ? রইল মোকাবিলার সহজ,পায়ের মারাত্মক ৭ সমস্যার লক্ষণ জেনে রাখুন, পায়ে চুলকানি হলে করণীয়

 

আমার বয়স ৩০ বছর। ঊরুর মাংসপেশি এবং কোমরের নিচে পেছনের মাংসপেশিতে অনেক দিন ধরে প্রচুর চুলকানি হচ্ছে। কোনোরকম ফুসকুড়ি (দাদ বা অন্য চর্মরোগের মতো) ওঠে না, মাঝখানে ডাক্তারি পরামর্শ ছাড়াই নিজে থেকে অ্যালাট্রল সেবন করায় কিছুটা কমেছিল, সেবন বাদ দেওয়ার পর আবারও একই অবস্থা, এর কারণ কী এবং কী করলে এর থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব?—মিন্টু, মধুপুর, টাঙ্গাইল।


পরামর্শ

এটি ছত্রাক সংক্রমণের কারণেই হয়েছে। পরিষ্কার সুতির কাপড় পরা, পা ঊরু কোমর শুষ্ক রাখা আর অ্যান্টি ফাঙাল ক্রিম ব্যবহার করা এর সমাধান।


বিজ্ঞাপন

প্রশ্ন ২

আমার বয়স ১৯ বছর। ১১-১২ বছর বয়স থেকে পায়ের পাতায় চামড়া ওঠার সমস্যায় ভুগছি। মাঝে মাঝে অনেক চুলকানি হয়। আমার দুই ভাইও একই সমস্যায় ভুগছে। পরামর্শ চাই।—নাফিসা ইকবাল


পরামর্শ

যেহেতু পরিবারে অন্যদেরও আছে, তাই এই সমস্যা সোরিয়াসিস বলেই মনে হচ্ছে। সোরিয়াসিস জীবনব্যাপী রোগ আর এর অনেক জটিলতা আছে। প্রাথমিকভাবে তরল প্যারাফিন, পেট্রোলিয়াম জেলি বা টপিকাল স্টেরয়েড মলম ব্যবহার করা যায়। তবে সমস্যা দীর্ঘদিনের ও জটিল হলে একজন বিজ্ঞ বিশেষজ্ঞর সঙ্গে দেখা করে দীর্ঘ মেয়াদে চিকিৎসা নিতে হবে।


পরামর্শ দিয়েছেন—অধ্যাপক মো. আসিফুজ্জামান, বিভাগীয় প্রধান, চর্ম ও যৌনরোগ বিভাগ, গ্রিনলাইফ মেডিকেল কলেজ, ঢাকা


প্রশ্ন ৩

সপ্তাহে আমার দু–একবার স্বপ্নদোষ হচ্ছে। এটা কি শরীরের জন্য ক্ষতিকর?—রা‌সেল হাওলাদার


পরামর্শ

বাংলায় শব্দটির নামে দোষ থাকলেও এটি দোষ নয়, বরং স্বাভা‌বিক ঘটনা। এটি উঠতি তারুণ্যে সবচেয়ে বেশি ঘটে থাকে, তবে কোনো কোনো ক্ষেত্রে বয়ঃসন্ধিকাল পার হওয়ার অনেক পরও এটা ঘটতে পারে। স্বপ্নদোষ এক‌টি স্বাভা‌বিক প্রাকৃ‌তিক বীর্যস্খলন। এটি বা‌রবা‌র হ‌লেও কোনো শারী‌রিক ক্ষ‌তি হয় না।


পরামর্শ দিয়েছেন—ডা. মাহমুদ চৌধু‌রী, কনসাল‌ট্যান্ট, চর্ম ও যৌন রোগ বিভাগ, ল‌্যাবএইড স্পেশালাইজড হাসপাতাল, ঢাকা

প্রখর তাপ থেকে মুক্তি পাওয়া গেলেও বর্ষার ঝক্কি-ঝামেলা কিছু কম নয়। তার উপরে রাস্তায় পানি জমলে তো সমস্যা কয়েক গুণ বেড়ে যায়। সেই পানি কাদার মধ্যে দিয়ে প্রায়ই যাতায়াত করতে গিয়ে পায়ে ফাংগাল ইনফেকশনের শিকার হতে হয়। এক বার এই ফাংগাল ইনফেকশন হলে পায়ে চুলকানি বা দুর্গন্ধ হয়। কিন্তু এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়ারও বেশ কয়েকটি ঘরোয়া টোটকা রয়েছে। চলুন জেনে নেওয়া যাক সেগুলো-

১. হেনা বা মেহেদি শুধু চুলের জন্যই ভাল নয়। হেনার পেস্ট যদি পায়ের ইনফেকশনে লাগান, তাহলে তা তাড়াতাড়ি শুকায়।

২. কাঁচা হলুদ বাটাও পায়ের ইনফেকটেড জায়গায় লাগালে সহজে ও শীঘ্রই রেহাই পাওয়া যায়।

৩. পায়ের পাতায় খুব বেশি চুলকানি হলে লেবুর রস ও ভিনিগার  মিশিয়ে তা লাগান।

৪. কাঁচা পেঁয়াজের রস ভাল করে পায়ে মালিশ করুন। এতে ক্ষত তাড়াতাড়ি শুকাবে।

৫. পুদিনা পাতা ও তুলসী পাতা বেটে তা পায়ের পাতায় লাগালেও উপকার পাবেন।

৬. ইনফেকশন থেকে পায়ে দুর্গন্ধ হলে পেপারমিন্ট অয়েল পায়ের পাতায় লাগান। শীঘ্রই উপকার পাওয়া যায় এই টোটকাতেও।

সর্বপরি, এই সব টোটকার আগেও বর্ষায় হাত পায়ের বিশেষ যত্ন নেওয়া উচিত। নোংরা পানি বা কাদা লাগলে অবশ্যই বাড়িতে গিয়ে ভাল করে পা ধুয়ে নিন।
Post Navi

Post a Comment

0 Comments

ads

Ad Code